বিজ্ঞপ্তি:
আমাদের ওয়েবসাইটে আপনাকে স্বাগতম
সংবাদ শিরোনাম:
গলাচিপায় পাবলিক পরীক্ষা কেন্দ্রসমূহে প্লাষ্টিকের বেঞ্চ বিতরণ গলাচিপা উপজেলা আওয়ামী লীগের নবগঠিত কমিটির পরিচিতি সভা লেবুখালী সেতুটি শহীদ আলাউদ্দিন সেতু নাম করনের দাবীতে কলাপাড়ায় মানববন্ধন ও সমাবেশ।। গলাচিপায় স্কুলের মাঠে গরুর হাট কলাপাড়ায় যৌন হয়রানি প্রতিরোধ কমিটি’র দুইদিন ব্যাপী ওরিয়েন্টেশন কুয়াকাটা পর্যটন কেন্দ্রের দ্বার খুলছে কাল, সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন করেছে পর্যটন নির্ভর ব্যবসায়ীরা কলাপাড়ায় গ্রাম পুলিশদের মাঝে বাইসাইকেল বিতরণ । করোনার সংকটময় মুহূর্তে অক্সিজেন সিলিন্ডার নিয়ে পাশে দাঁড়িয়েছে “কলাপাড়া উপজেলা সমিতি,ঢাকা পিরোজপুরে নতুন এসপি হিসেবে নিয়োগ পেয়েছেন সাইদুর রহমান পিরোজপুরে প্রধানমন্ত্রীর মানবিক সহায়তার নগদ অর্থ পেলে ৬৭৫ টি পরিবার
আক্রান্ত

সুস্থ

মৃত্যু

  • জেলা সমূহের তথ্য
ন্যাশনাল কল সেন্টার ৩৩৩ | স্বাস্থ্য বাতায়ন ১৬২৬৩ | আইইডিসিআর ১০৬৫৫ | বিশেষজ্ঞ হেলথ লাইন ০৯৬১১৬৭৭৭৭৭ | সূত্র - আইইডিসিআর | স্পন্সর - একতা হোস্ট
রাহিলা আক্তারের ধারাবাহিক উপন্যাস। মনের গহীনে, (পর্ব-১)

রাহিলা আক্তারের ধারাবাহিক উপন্যাস। মনের গহীনে, (পর্ব-১)

মনের গহীনে
রাহিলা আক্তার
পর্ব-১
বাবলি রান্না ঘরের সামনে দাঁড়িয়ে অন্ধকারে হাঁপাচ্ছে । তার মনে হচ্ছে তার বুকের ভেতর কেউ যেন বিশাল আকৃতির ঘন্টা বাজিয়ে চলছে অবিরাম । থামার যেন কোন লক্ষণ নেই। না, সে শুধু ভয় পেয়েই এমনটা করছে না। এ যেন একই সাথে ভয় ও ভালোলাগার অদ্ভূত অনুভূতি। এ অনুভূতির সাথে তার আজই প্রথম পরিচয় ।
আনন্দ’র সাথে তার এই সপ্তাহ খানেকের পরিচয়। আনন্দ সম্পর্কে বাবলির দূরসম্পর্কের ফুপাতো ভাই। এক সপ্তাহের পরিচয়ে দু’জনের প্রতি দু’জনের একটা ভালোলাগার সম্পর্ক তৈরি হয়েছে। আজ সন্ধ্যার ঠিক আগ মুহূর্তে আনন্দ হঠাৎই বাবলিকে বললো, ভালবাসার স্মৃতি হিসেবে সে বাবলিকে কিছু দিতে চায়। বাবলি সাথে সাথে আনন্দ’র ভালবাসার অর্ঘ্য নেওয়ার জন্য হাত বাড়িয়ে দেয়। কিন্তু বাবলিকে হতবাক করে দিয়ে আনন্দ তার ডান গালে আলতো করে এঁকে দেয় তার ওষ্ঠযুগলে কোমল স্পর্শ। মুহূর্তেই চৌদ্দ বছরের কিশোরী বাবলির মুখে জড়ো হয় পৃথিবীর সব লজ্জা। সে কি করবে ঠিক বুঝে উঠতে না পেরে এক দৌঁড়ে রান্না ঘরের দরজার সামনে চলে আসে। তখন থেকেই সে এভাবে দাঁড়িয়ে দাঁড়িয়ে হাঁপাচ্ছে । একদিকে বাসার সবার কাছে ধরা পড়ে যাওয়ার ভয়, অন্যদিকে প্রচন্ড লজ্জা ও ভালোলাগার অনুভূতি তার সকল বোধকে অসাড় করে দিচ্ছিল । তার মাথার মধ্যে তখন শুধু একটি প্রশ্নই ঘুরছিলো, “এই অনুভূতির নামই কি ভালোবাসা?”
– ওই মুরগী লাগবে, মুরগী? আফা মুরগী লাগবে?
হকারের চিৎকারে বাবলির সম্বিৎ ফিরে আসে। সে কুড়ি বছরের পুরোনো অতীত থেকে এক লাফে  ফিরে আসে বর্তমানে। ফেসবুকের হোম পেজে আনন্দের নামটা দেখে বাবলি হারিয়ে গিয়েছিলো ২০০০ সালের ডিসেম্বরের সেই সর্বনাশা সন্ধ্যায়। যে সন্ধ্যাটি আজও বাবলিকে সুখি হতে দেয় নি। সব কিছু পেয়েও মাঝেমাঝেই মনে হয় তার কিছুই পাওয়া হয়নি। আজ বাবলির জীবনে কি নেই? স্বামী, সন্তান, সংসার, সম্পত্তি, ভালো চাকরি- সবই আছে তার। তবুও কেন ছুটির অলস দুপুরগুলোতে তার এমন নি:স্বঙ্গ লাগে? নিজের কাছে বাবলি অসংখ্য বার প্রশ্ন করেছে। কিন্তু উত্তর মেলে নি একটি বারও। প্রতিবারের মতো এবারও বাবলির নিজের কাছে করা প্রশ্নের উত্তর মেলে নি।
সে বার আনন্দ বাবলিদের বাড়িতে পঁচিশ দিন থেকেছিলো। চলে যাওয়ার আগের দিন বিকেলে বাবলি যখন হোমওয়ার্ক করছিলো, তখন আনন্দ বাবলির পড়ার ঘরে গিয়ে তার হাতে একটি চিরকুট গুজে দেয়। যাতে লিখা ছিলো, A flower cannot be imagined without a bee. বাবলিও আনন্দের চিঠির উত্তরে সেদিন রাতে আনন্দকে একটি চিঠি দিয়েছেলো। বাবলি আনন্দকে লিখেছিলো, আমি তোমার ফুল হয়ে আমার মৌমাছির জন্য অপেক্ষা করবো।’ কিন্তু না শেষ পর্যন্ত বাবলি তার কথা রাখতে পারেনি। অপেক্ষা করা হয়ে হয়ে ওঠেনি তার। আর এ কথা না রাখার জন্য বাবলি কখনো আত্মগ্লানিতে ভোগে নি। তবে আজ বিশ বছর পর বাবলির কি হলো? বাবলির কেন মনে হচ্ছে তার অপেক্ষা করা উচিত ছিল।
আনন্দ চলে যাওয়ার আগে বালিকে তার ঠিকানা দিয়ে গিয়েছিলো। তখন এখনকার মতো মোবাইল ফোন সকলের হাতে হাতে ছিল না। যোগাযোগের মাধ্যম ছিলো চিঠি নয়তো ল্যান্ডফোন। তবে কিছু বড় শহরে মোবাইলের প্রচলন শুরু হলেও বাবলিদের পটুয়াখালী শহরে তখনও মোবাইলের নেটওয়ার্ক ছিল না। আর বাসার ল্যান্ডফোনগুলোতে কল আসলে যেহেতু বড়রা রিসিভ করতো, সেহেতু যোগাযোগের একমাত্র ভরসা চিঠি। তাও আবার লিখতে হতো নাম পাল্টে। বাবলির আজও স্পষ্ট মনে আছে আনন্দ’র যাওয়ার দিন সকাল থেকেই বাবলি অসুস্থতার ভান করে কাঁথা মুড়ি দিয়ে আনন্দ’র চলে যাওয়া পথের দিকে তার তাকিয়ে থাকার সাহস হয় নি সেদিন। ( চলবে..)

সোশ্যাল মিডিয়াতে শেয়ার করুন

banner728x90

banner728x90




১৯৬১ সালের স্বেচ্ছামূলক সমাজকল্যাণ প্রতিষ্ঠান অধ্যাদেশ নম্বর ৪৬ এর ৪ (৩) ধারার অধীনে নিবন্ধিত প্রতিষ্ঠান রুরাল ইনহ্যন্সমেন্ট অর্গানাইজেশন( রিও) নিবন্ধন নং -সসেঅদ/ পটুয়া/ ৬৬৩ এর উন্নয়ন প্রকাশনা
কারিগরি সহায়তা: Next Tech